May 24, 2024
বুকে ব্যাথার ঔষধের নাম । বুকে ব্যাথা হলে কি করনীয় ।

বুকের ব্যথার উপর নির্ভর করে চিকিৎসা দেওয়া উচিত । কেননা বুকের ব্যাথা বিভিন্ন কারণ জনিত হতে পারে ।  তাই আসুন জেনে নেই বুকের ব্যথার ঔষধের নাম এবং বুকে ব্যাথা হলে কি করনীয় । বুকে ব্যথার কারণ কি ? সাধারণত মানুষের গ্যাস্ট্রিকের সমস্যা হলে বুকে জ্বালাপোড়া বা ব্যাথা ব্যাথা অনুভব হয় ।  বুকের ব্যথা কতটা তীব্র সেই অনুসারে ওষুধ সেবন করা দরকার ।  তাই আসুন প্রথমত জেনে নেই বুকে ব্যথার কারণগুলি 

 বুকে ব্যথার লক্ষন বা কারণঃ

সাধারণত মানুষের যে সকল দুঃখের কথা সমস্যা আছে এগুলো স্বাভাবিকভাবে গ্যাস্ট্রিক বা আরো অন্যান্য সমস্যা কারণে  হয়ে থাকে ।  কিন্তু আমাদের জানার বাইরে এছাড়া আরো অনেকগুলো কারণ রয়েছে । আসুন তাহলে জেনে নেই কি কি কারণে বুক ব্যথা হয় 

  • যদি কোন ব্যক্তির হার্টের সমস্যা থাকে তাহলে এর জন্য বুকে ব্যথা হতে পারে । 
  • এরপর ফুসফুসের সমস্যা  যেমন, হাঁপানি নিউমোনিয়া পালমোনারি এম্বোলিয়াম  ইত্যাদি নানা কারণে বুক ব্যথা করতে পারে । 
  • এরপর পেশি বা হাড়ে সমস্যা । পেশীতে স্ট্রেন বা টান, পাঁজরের হাড়ের আঘাত । 
  • প্যানিক অ্যাটাক  বা উদ্যোগ জনিত ব্যথা ।
  • এরপর যদি এলার্জি থাকে এরপর এই সমস্ত দেখা দিতে । 
  •  এছাড়াও  গ্যাস্ট্র এজোফেজিয়াল রিফ্লাক্স ডিজিজ । এর সমস্যার কারণে বুক ব্যাথা হতে পারে । 

আমরা প্রথমত দেখে নিলাম বুক ব্যাথা লক্ষণ বা কারণ গুলো ।  মূলত এই সমস্যা গুলোর কারণে বুক ব্যথা হতে পারে । তাহলে এবার আসুন জেনে নেয়া যাক বুক ব্যথার সাধারণ কিছু ওষুধ যা খেলে আপনার বুকের ব্যথা অনেকাংশে কমে আসবে ।  তাই বুকে ব্যথা ওষুধ গুলোর নাম নিম্নলিখিত করা হলো,

বুকে ব্যথার ঔষধের নামঃ 

এ সমস্যার কারণে আমরা বিভিন্ন প্রকার ওষুধ সেবন করে থাকি  ।  আসলে অযথা ওষুধ সেবন করাই কোন লাভ নেই ।  কেননা ব্যথার উপর নির্ভর করে এবং কিসের ব্যথা তার নির্ধারণ করে ওষুধ সেবন করা প্রয়োজন ।  তাই আসুন এবার জেনে নেব কোন সমস্যার কারণে কি কি ওষুধ খাবে সেই সম্পর্কে নিম্নলিখিত একটি চার্ট দেয়া হলো। 

  • যদি আপনার হাঁপানি বা নিমনিয়ার কারণে বুকে ব্যথা হয় তাহলে এই ওষুধ গুলো ব্যবহার করব,- নেশাল স্প্রে বা ইনহেলার । 
  •  আপনার যদি হারে মাংসের পেশীতে সমস্যার  কারণে বুকে ব্যথা অনুভব হয় তাহলে এন্টি ইনফ্লেটারি ওষুধ সেবন করবেন ।
  • যদি আপনার পিনিক অ্যাটাক বা উদ্বেগ জনিত ব্যথার কারণ  কারণ হয় তাহলে আপনি এন্টি ডিপ্রেসেন্ট ওষুধ ব্যবহার করবেন ।
  • এছাড়া আর একটি  ট্যাবলেট রয়েছে যার নাম হচ্ছে এসিড – রেটারক্ট্যান্ট । এইটা একটি বুকে ব্যথা জনিত কারণে ব্যবহার করা হতো । 

বুকে ব্যথার জন্য এই সকল ঔষধ সেবন ।  তবে ব্যথা অনুযায়ী ওষুধগুলো সেবন পাবেন । উপরে চার্টে ব্যথা নাম এবং ব্যথার ওষুধ দেয়া হয়েছে সে সকল ব্যথার উপর নির্ভর করে ওষুধ সেবন করবেন । এছাড়াও এগুলো সব খাওয়ার আগে অবশ্যই ডাক্তারের সাথে পরামর্শ করে নেওয়া উচিত ।  ডাক্তার যদি আপনার ব্যথা অনুযায়ী এই সকল ওষুধ খেতে পারে তাই অবশ্যই সকল ওষুধ  সেবন করবেন । এছাড়া আর একটা জিনিস জানা খুব প্রয়োজন সেটা আছে বুকে ব্যথা হলে কি কি করণীয় ।  আসন তাহলে এবার জেনে নিন বুকে ব্যাথা হলে করণীয় গুলো কি । 

আরও পড়ুন

বুকে ব্যথা হলে কি করনীয়ঃ

এই বুকে ব্যথার সমস্যায় করলে অনেক রকম করণীয় রয়েছে তা হচ্ছে,

  • বুকে ব্যথা হলে সর্বপ্রথম আপনার বিশ্রাম নেওয়া অতি গুরুত্বপূর্ণ । কেননা বিশ্রাম নিলে আপনার হৃদয়কে আরো বেশি রক্ত  পাম্প করতে দেয় এবং ব্যথা কমাতে সাহায্য করে । 
  • দ্বিতীয়তঃ আপনি ব্যথা সব ওষুধ সেবন করতে পারেন । 
  •  এরপর বুকের উপর হালকা হালকা চাপ দিন । 
  • এছাড়া আপনি আরেকটি কাজ করতে পারেন,  সেটা হচ্ছে আপনি গভীরভাবে শ্বাস নিন এবং বুকের উপর চাপ দিন ।

এছাড়া হার্ট অ্যাটাকের মত গুরুত্বপূর্ণ রোগীকে কিভাবে চিনবেন । আসুন তাহলে এর বিস্তারিত কিছু আলোচনা করি । 

 হার্ট অ্যাটাক এর লক্ষণঃ

  •  প্রথম অবস্থায় বুকে চাপ দিন । 
  •  এরপর শ্বাসকষ্ট ।
  • বমি বমি ভাব বা বমি হওয়া ।
  •  অতিরিক্ত ঘাম ।
  •  মাথা ঘোরা ।
  •  এরপর হচ্ছে চোখে অন্ধকার দেখা । 

উপরের এগুলো লক্ষণ দেখলে বুঝতে পারবেন  এটি একজন হার্টের রোগী ।  হার্ট জনিত বিভিন্ন সমস্যার কারণে দুখে ব্যথার এসব করল দেখা । তাই উপরে সকল লক্ষণ দেখলে বুঝবো হার্ট অ্যাটাক এর লক্ষণ এবং হার্ট অ্যাটাক রোগী চেনার উপায় ।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *